মে 20, 2022

Disha Shakti News

New Hopes New Visions

ইস্তফার দিন দীনেশকে রাজ্যসভায় বক্তব্য রাখার অনুমতি কেন? চেয়ারম্যানকে চিঠি সুখেন্দুশেখরের

দলের জন্য নির্ধারিত সময় ফুরিয়ে যাওয়ার পরেও কী ভাবে রাজ্যসভায় বক্তৃতা করলেন দীনেশ ত্রিবেদী, প্রশ্ন তুলে তদন্তের দাবি করল তৃণমূল। এই মর্মে রাজ্যসভার চেয়ারম্যানকে চিঠি দিলেন রাজ্যসভায় তৃণমূলের মু্খ্য সচেতক সুখেন্দুশেখর রায়। সেখানেই এই দাবি তোলা হয়।
দীনেশ ত্রিবেদী যেদিন ইস্তফা দেওয়ার কথা ঘোষণা করেন, সেদিনই সুখেন্দুশেখর এই প্রশ্ন তুলেছিলেন। বলেছিলেন, ‘‘বাজেটের উপর আলোচনার জন্য তৃণমূলের দু’জনের নাম নির্ধারিত ছিল। তাঁদের বলার পর দলের জন্য নির্ধারিত সময় শেষ হয়ে যায়। তারপরেও দীনেশ কী করে বক্তব্যের অনুমতি পেলেন?’’
শনিবার সুখেন্দুর চিঠিতে এই অভিযোগই বিস্তারিত লেখা হয়েছে। সুখেন্দু লিখেছেন, ‘দুপুর ১.২৫ থেকে বাজেট বিতর্কের জবাবি ভাষণ দেওয়ার কথা ছিল কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামনের। তার মধ্যেই হঠাৎ ৪ মিনিটের জন্য বলার সুযোগ পেয়ে যান দীনেশ ত্রিবেদী। ১.২৫ থেকে ১.২৯ পর্যন্ত তিনি কথা বলেন। তৃণমূলের সময় তখন শেষ হয়ে গিয়েছিল।কী ভেবে দীনেশ বলার অনুমতি পেলেন’?
তৃণমূল মনে করছে, এই ঘটনা রাজ্যসভার ইতিহাসে ‘অভূতপূর্ব’। ‘সব নিয়ম ভেঙে’ এ ভাবে দীনেশকে বলতে দেওয়ার সুযোগ কেন দেওয়া হল, তার তদন্ত করা উচিত। শুধু তাই নয়, বারাকপুরের প্রাক্তন সাংসদের বিরুদ্ধে আরও অভিযোগ করেছে তৃণমূল। ‘রাজ্যসভার গ্যালারিতে নির্দিষ্ট আসন রয়েছে দীনেশ ত্রিবেদীর। সেখান থেকে নেমে এসে কী করে তিনি কাউন্সিলএলাকায় বসলেন ও কথা বলতে শুরু করলেন?’এ ছাড়াও প্রশ্ন তোলা হয়েছে সেই সময়ে স্পিকারের আসনে থাকা ডেপুটি চেয়ারম্যানের ভূমিকা নিয়ে।
Report by web desk
Reported on – 14/02/2021

Share this News
error: Content is protected !!