জানুয়ারী 31, 2023

Disha Shakti News

New Hopes New Visions

‘জায়ান্ট ইন্টার কন্টিনেন্টাল মিসাইল’ প্রদর্শন করলো উত্তর কোরিয়া

নিজস্ব সংবাদদাতা : সামরিক কুচকাওয়াজে বিশ্বের সবচেয়ে বড় ক্ষেপণাস্ত্র প্রদর্শন করল উত্তর কোরিয়া। গতবছর ডিসেম্বরে উত্তর কোরিয়ার রাষ্ট্রনায়ক কিম জং উন বলেছিলেন, তাঁরা একটি নতুন অস্ত্র বানিয়েছেন। বিশেষজ্ঞদের ধারণা এই অস্ত্রের কথাই বলেছিলেন তিনি। মার্কিন বিশেষজ্ঞরা বলছেন, অত বড় আন্তর্মহাদেশীয় ক্ষেপণাস্ত্র বিশ্বে আর নেই। ২০১৭ সালে আন্তর্মহাদেশীয় ক্ষেপণাস্ত্রের পরীক্ষামূলক উত্ক্ষেপণ করে উত্তর কোরিয়া। সেই ক্ষেপণাস্ত্র আমেরিকার যে কোনও স্থানে আঘাত হানতে পারে। এদিন কিম জং উন সমবেত জনতাকে বলেন, আমরা আত্মরক্ষার জন্য নিজেদের সেনাবাহিনীকে আরও শক্তিশালী করে তুলব।উত্তর কোরিয়া যাতে আর পরমাণু অস্ত্র না বানায়, সেজন্য তাদের অনুরোধ করেছিল আমেরিকা। গতবছর হ্যানয়ে দুই দেশের শীর্ষ বৈঠকে বিষয়টি নিয়ে আলোচনা হয়েছিল। সেই বৈঠক ব্যর্থ হয়। আমেরিকা তার পরেও কূটনৈতিক পথে উত্তর কোরিয়ার সঙ্গে যোগাযোগ রাখে। তাদের পরমাণু অস্ত্রগুলি ধ্বংস করে ফেলতে অনুরোধ করে। কিন্তু অনেকেরই ধারণা ছিল, উত্তর কোরিয়া গোপনে পরমাণু অস্ত্র বানিয়ে চলেছে। গত জুন মাসেই দক্ষিণ কোরিয়ার বিরুদ্ধে যুদ্ধের হুমকি দিয়েছিল উত্তর কোরিয়া। কিম জং উনের বোন কিম ইয়ো জং সংবাদ মাধ্যমকে বলেছিলেন, ‘যা জঞ্জাল তাকে ডাস্টবিনে ফেলাই ভাল। আমাকে যে ক্ষমতা দেওয়া হয়েছে , তার জোরে আমি সেনাবাহিনীকে নির্দেশ দিয়েছি, এবার তারাই ভেবে দেখুক, দক্ষিণ কোরিয়ার বিরুদ্ধে কী ব্যবস্থা নেওয়া যায়।’ দৈত্যাকার আন্তর্মহাদেশীয় ক্ষেপণাস্ত্র’ প্রদর্শন করে উত্তর কোরিয়া আমেরিকা এবং দক্ষিণ কোরিয়াকে কড়া বার্তা দিলো বলে মনে করছেন আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিশেষজ্ঞরা ।

Share this News
error: Content is protected !!