মে 20, 2022

Disha Shakti News

New Hopes New Visions

প্রথমবার আইপিএলের ফাইনালে দিল্লি

নিজস্ব সংবাদদাতা : ১৩ বছরে প্রথমবার ইতিহাস লিখল দিল্লি। এই প্রথমবার, আইপিএলের ফাইনালে উঠল তারা। রবিবার আবু ধাবিতে সানরাইজার্স হায়দরাবাদকে হারিয়ে এই কৃতিত্ব অর্জন করে তারা। এই ম্যাচে এমন দুটি দল মুখোমুখি হয়েছে যাদের সম্পূর্ণ আইপিএল ভাগ্য সম্পূর্ণ বিপরীতমুখী। হায়দরাবাদ নিজেদের শেষ ছ’টা ম্যাচের মধ্যে পাঁচটা জিতে এই ম্যাচে এসেছে। অন্যদিকে সমসংখ্যক ম্যাচে দিল্লি হেরেছে পাঁচটি ম্যাচ।তবে, প্রথম কোয়ালিফায়ারে মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের বিরুদ্ধে ব্যর্থ দিল্লি ব্যাটসম্যানরা এদিন দারুণ ব্যাটিং করে হায়দরাবাদের সামনে শক্ত চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে দেয়। ওপেনিংয়ে ধাওয়ানারে পার্টনার পরিবর্তন করে দিল্লি। টানা ব্যর্থ হওয়া পৃথ্বী শ-কে বাদ দেওয়া হয় । ধাওয়ানের সঙ্গী হিসেবে মার্কাস স্টওনিসকে ব্যাট করতে পাঠায় দিল্লি।ওপেনিংয়ে দুরন্ত ধাওয়ান-স্টওনিস জুটি। পাওয়ার প্লে-তে কোনও উইকেট না-হারিয়ে ৬৫ রান তোলে দিল্লিকে শক্ত ইনিংসের উপর দাঁড় করিয়ে দেন ধাওয়ান ও স্টওনিস।ওপেনিং জুটিতে ৮.২ ওভারে ৮৬ রান তোলে দিল্লি।ওপেনিং পার্টনারকে হারালেও ধাওয়ানের আক্রমণাত্মক ব্যাটিং অব্যাহত থাকে। তাঁকে কিছুক্ষণ সঙ্গ দেন ক্যাপ্টেন শ্রেয়স আইয়ার। ২০ বলে ২১ রান করে জেসন হোল্ডারের বলে আউট হন। এরপর ক্রিজ আসেন গত দু’ম্যাচে মাঠের বাইরে থাকা হেটমায়ার। ধাওয়ানের সঙ্গে তাঁর ২৮ বলে হাফ-সেঞ্চুরির পার্টনারশিপ দিল্লিকে বড় রানে পৌঁছে দেয়।দুরন্ত হাফ-সেঞ্চুরি ধাওয়ানের। ইনিংসে ৬টি চার ও ২টি ছক্কা মারেন তিনি। আর ২২ বলে ৪২ রানের ঝেড়ো ইনিংস খেলে দিল্লিকে ১৮৯ রানে পৌঁছে বড় ভূমিকা নেন হেটমায়ার। ঋদ্ধির অভাবটা কিন্তু পুরো দমে টের পেয়েছে হায়দরাবাদ।ইনিংসের দ্বিতীয় ওভারেই এ দিন কাগিসো রাবাদার দুর্ধর্ষ ইয়র্কার সামলাতে না পেরে বোল্ড হয়ে যান ডেভিড ওয়ার্নার। এই সেই ওয়ার্নার, যিনি ঋদ্ধির উপস্থিতিতে ক্রমশ মেলে ধরছিলেন নিজেকে। অন্যদিকে এ দিন ওয়ার্নারের সঙ্গে ওপেন করতে নামা প্রিয়ম গর্গ শুরুতে কয়েকটা ছক্কা হাঁকালেও নিজের ইনিংস এগিয়ে নিয়ে যেতে ব্যর্থ হন।নিউজিল্যান্ড অধিনায়ককে সাধারণত এতটা আগ্রাসী দেখা যায় না, এ দিন তিনি যে ভাবে খেলছিলেন। দুরন্ত একটি অর্ধশতরান করে ফেলেন তিনি।কিন্তু ১৭তম ওভারেই তাল কেটে গেল। আবার সেই স্টয়নিস উইকেট তুললেন। উইলিয়ামসনকে ড্রেসিং রুমের পথ দেখালেন। হায়দরাবাদের আশায় কার্যত জল ঢালা হয়ে যায়। শেষ চেষ্টা কিন্তু করেছিলেন সামাদ এবং রশিদ খান। কিন্তু ১৯তম ওভারে পর পর দুটো বলে দু’জনকে তুলে হায়দরাবাদের কফিনে শেষ পেরেক পুঁতে দেন তিনি।হায়দরাবাদকে ১৭ রানে হারিয়ে আইপিএল’১৩-র ফাইনালে পৌঁছে গেল দিল্লি ক্যাপিটালস।
Report by Sports Desk
Reported on – 09/11/2020

Share this News
error: Content is protected !!