মে 20, 2022

Disha Shakti News

New Hopes New Visions

বর্ণবিদ্বেষী মন্তব্যের শিকার বুমরা, সিরা জ

সিডনি ক্রিকেট গ্রাডিন্ডে অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে তৃতীয় টেস্ট চলাকালীন বর্ণবিদ্বেষী মন্তব্যের শিকার হন জশপ্রীত বুমরা এবং মহম্মদ সিরাজ। এই দুই ভারতীয় ক্রিকেটারের উদ্দেশ্যে বর্ণবিদ্বেষী মন্তব্য করেছেন সিডনিতে খেলা দেখতে আসা বেশ কিছু অজি সমর্থক। ঘটনা জানাজানি হতেই নড়েচড়ে বসে ভারতীয় টিম ম্যানেজমেন্ট। বিসিসিআইয়ের কাছে অভিযোগ জানায় টিম ম্যানেজমেন্ট। এর পরেই আসরে নামে বিসিসিআই। আইসিসির কাছে অভিযোগ জানিয়েছে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড।
ব্রিসবেন টেস্ট নিয়ে এমনিতেই বিসিসিআইয়ের সঙ্গে অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট বোর্ডের মধ্যে সাপে-নেউলে সম্পর্কে এসে তাড়িয়েছে। এরই মধ্যে এই ঘটনা যে এই দুই দেশের ক্রিকেট বোর্ডের মধ্যে ঝামেলার পারদ যে বেশ বাড়িযে দিল সেটা বলার অপেক্ষা রাখে না। বেশ কয়েকদিন ধরেই ভারতীয় ক্রিকেটারের উপরেই চাপ বাড়াচ্ছিল অজি ক্রিকেট বোর্ড। বিশেষ করে ব্রিসবেনে নতুন করে কোয়ারেন্টাইনে ভারতীয় ক্রিকেটারদের থাকার পাশাপাশি দ্বিতীয় দিনে মাঠের মধ্যেই অজি ক্রিকেটারদের স্লেজিং। এই সিরিজ শুরুর পর একাধিকবার সংবাদ শিরোনামে এসেছে অজিরা। এবার অজি সর্মকদের এই আচরণে অবাক ভারতীয় বোর্ড।
ঘটনার সূত্রপাত ম্যাচ চলাকালীন ফাইন লেগে ফিল্ডিং করছিলেন মহম্মদ সিরাজ। ঠিক সেই সময় গ্যালারি থেকে ডিড়ে আসে বর্ণবিদ্বেষী মন্তব্য। মাঠের মধ্যে দশ হাজার দর্শক থাকায় কে ঘটনাটি ঘটিয়েছেন তা চিহ্নিত করতে পারেননি ক্রিকেটাররা। তবে যে আওয়াজ পাওয়া গিয়েছিল সেই অডিও ক্লিপিং আইসিসির কাছে পেশ করতে পারে টিম ম্যানেজমেন্ট। তবে এই ঘটনার পুরো দেখা শোনা করতে পারে আইসিসি।
শুধু তৃতীয় দিনই নয়, ভারতের অভিযোগ দ্বিতীয় দিনেও এই দুই ক্রিকেটারের উদ্দেশে বর্ণবিদ্বেষী মন্তব্য করা হয়েছে। বিষয়টি আইসিসি বিবেচনা করছে। তৃতীয় দিনের খেলা শেষে অজিঙ্কা রাহানে, রবিচন্দ্রন অশ্বিন-সহ দলের সিনিয়র ক্রিকেটাররা গিয়ে কথা বলেন দুই আম্পায়ার পল রাইফেল এবং পল উইলসনের সঙ্গে। বুমরা এবং সিরাজও সেখানে হাজির ছিলেন। সেখানেই তাঁরা দর্শকাসন থেকে বর্ণবিদ্বেষী মন্তব্যের কথা উল্লেখ করেন। এরপর অন্তত মিনিট দশেক দুই আম্পাযার, নিরাপত্তারক্ষী এবং ভারতীয় ক্রিকেটারদের মধ্যে আলোচনা হয়।
রাহানে, অশ্বিনরা এরপর ড্রেসিংরুমের দিকে পা বাড়ালেও ভারতীয় দলের নিরাপত্তা আধিকারিক মাঠের নিরাপত্তারক্ষীদের সঙ্গে কথা চালিয়ে যান। আইসিসি-র নিরাপত্তা আধিকারিকও সেখানে হাজির ছিলেন। এরপরেই ভারতের তরফে সরকারি ভাবে অভিযোগ জানানো হয়। যদি ভারতের অভিযোগ সত্যি বলে প্রমাণিত হয়, তা হলে বাকি দিনগুলিতে মাঠে দর্শকদের প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা জারি হতে পারে। সিডনির এই ঘটনা মনে করিয়ে দিয়েছে সেই বিখ্যাত ‘মাঙ্কিগেট’ বিতর্কের কথা। ২০০৮ সালের ওই সিরিজে ভারতীয় দলের স্পিনার হরভজন সিংহের উদ্দেশে সে বার বর্ণবিদ্বেষী মন্তব্য করেছিলেন অস্ট্রেলিয়ার অ্যান্ড্রু সাইমন্ডস। অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ার পর তিন ম্যাচ নির্বাসিত হয়েছিলেন সাইমন্ডস। তবে আবেদনের পর নির্বাসন কমে আর্থিক জরিমানা হয়। তবে এই ঘটনায় কী পদক্ষেপ নেয় ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া সেটাই এখন দেখার বিষয়।

Report by sports Desk
Reported on – 10/01/2021

Share this News
error: Content is protected !!