জানুয়ারী 31, 2023

Disha Shakti News

New Hopes New Visions

বাঁধ ভাঙা ভিড় অষ্টমীর রাতে

নিজস্ব সংবাদদাতা : পুজো যতই এগোচ্ছে, ততই বাড়ছে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা। পুজোর আগে যে আশঙ্কা করেছিলেন চিকিত্সক থেকে বিশেষজ্ঞরা, দেখা যাচ্ছে সেই আশঙ্কাই সত্যি হতে চলেছে। পুজোর পর সমগ্র রাজ্যের করোনা পরিস্থিতি কোথায় গিয়ে দাঁড়ায় তা নিয়ে সকলেই সন্দিহান। কিন্তু পঞ্চমী থেকে অষ্টমী পর্যন্ত রাজ্যের করোনা পরিস্থিতি যেখানে গিয়ে দাঁড়িয়েছে তা চিন্তা বাড়াচ্ছে সকলেরই। ষষ্ঠী, সপ্তমী তবু মানুষের ভিড় নিয়ন্ত্রণে ছিল। কিন্ত অষ্টমীতে বাঁধ ভেঙে গেল। কোভিড আতঙ্ক এবং সতর্কতা উড়িয়ে কলকাতার রাস্তায় থিকথিকে ভিড়। প্যান্ডেলে নো এন্ট্রি হলেও রাস্তায় বেরোনোর কোনও নিষেধাজ্ঞা ছিল না। মহা অষ্টমীর সন্ধ্যায় দেখা গেল লোকারণ্য কলকাতা। উত্তর থেকে দক্ষিণ সর্বত্র এক ছবি। সামাজিক বা শারীরিক দূরত্বের লেশমাত্র নেই। কারও মুখে মাস্ক আছে আবার দেখা গিয়েছে কারও মাস্ক নেই। জেলাগুলিতেও নজরকাড়া ভিড় দেখা গিয়েছে এদিন। হাওড়া, হুগলি দুই চব্বিশ পরগনা, দুই মেদিনীপুর, বর্ধমান, আসানসোল থেকে উত্তরবঙ্গের জেলাগুলিতেও একই ছবি দেখা গিয়েছে । সমস্ত আতঙ্ক উড়িয়ে যখন রাস্তায় মহানগর থেকে জেলা তখন স্বাস্থ্য ভবনের বুলেটিন বলছে , গত ২৪ ঘণ্টায় কলকাতায় নয়া আক্রান্তের সংখ্যা যেখানে ৮৯৫ জন, সেখানে উত্তর ২৪ পরগণায় এই সংখ্যা ৮৯৬ জন। এই দুই জেলায় মৃতের সংখ্যা যথাক্রমে ১৯ ও ১৪ জন। এখনও পর্যন্ত কলকাতায় সক্রিয় করোনা রোগীর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৭,৪০৯ জন। অন্যদিকে, উত্তর ২৪ পরগণায় এই সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৭,২৫১ জন। যা রাজ্যের মধ্যে সবচেয়ে বেশি। এখনও পর্যন্ত এই দুই জেলায় মোট করোনা আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৭৫ হাজার ও ৭০ হাজারের সামান্য বেশি।এখনও পর্যন্ত সারা রাজ্যে মোট করোনা আক্রান্ত হয়েছেন প্রায় ৩.৪৬ লক্ষ মানুষ। তার মধ্যে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ৩.০২ লক্ষের বেশি মানুষ। করোনা আক্রান্ত হয়ে চিকিত্সাধীন রয়েছেন ৩৬,৮০০-এর বেশি মানুষ।

Share this News
error: Content is protected !!