মে 26, 2022

Disha Shakti News

New Hopes New Visions

সুদীপ্ত সেনের চিঠি গ্রহণ করল আদালত


নিজস্ব সংবাদদাতা : কয়েক হাজার কোটি টাকা তছরুপের অভিযোগে জেলে রয়েছেন সারদা কর্ণধার সুদীপ্ত সেন। সম্প্রতি সেখান থেকে ফের একটি চিঠি লিখেছেন সুদীপ্ত সেন। নিয়মমতো সেই ২১ পাতার চিঠিটি আদালতে পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে। সিএমএম সেই চিঠিটি গ্রহণ করে তার বিষয়বস্তু এই মামলায় অন্তর্ভুক্ত করেছেন। ভারতের রাষ্ট্রপতি, সুপ্রিমকোর্টের প্রধান বিচারপতি, প্রধানমন্ত্রী, মুখ্যমন্ত্রী ও সিবিআইয়ের ডিরেক্টরকে উদ্দেশ্য করে এই চিঠি লিখেছেন সুদীপ্ত সেন। শনিবার তৃণমূল নেতা কুণাল ঘোষ জানান, সারদা সংস্থার কোন কোন কর্মচারী এই প্রতারণার জন্য দায়ী ও বিভিন্ন দলের রাজনৈতিক নেতা, যাঁরা অ্যাকাউন্ট বহির্ভূত টাকা নিয়েছেন, তাঁদের নাম ও টাকার পরিমাণ ওই চিঠির মাধ্যমে জানিয়েছেন সুদীপ্ত সেন। সুদীপ্ত সেন তাঁর নিজের হাতে লেখা ২১ পাতার একটি চিঠি তাঁর বয়ান হিসেবে সিএমএম আদালতের কাছে পাঠান। বিচারক সারদা মামলায় সেটিকে অন্তর্ভুক্ত করেছেন। এদিন কুণাল ঘোষ এর সার্টিফায়েড কপি হাতে পেয়েছেন। আইনজীবীর মাধ্যমে কুণাল ঘোষ জেনেছেন, ২০১৩ সালে তাঁর লেখা যে চিঠিটি সামনে আনা হয়েছিল, সেটি কারা তাঁকে লিখিয়েছিলেন, তাঁকে বাইরে পাঠিয়েছিলেন, কারা যোগাযোগ রেখেছিলেন ও সেই গোটা প্লট সাজিয়েছিলেন, আগের কোন প্রেক্ষাপটে লেখা হয়েছে ও কেন তিনি এখন সত্যি কথাগুলি লিখছেন, এই চিঠিতে তা বর্ণনা করেছেন। কুণালের দাবি, দীর্ঘদিন জেলবন্দি থেকে সুদীপ্ত সেন যে বিপর্যস্ত এই চিঠিতে সে কথাই ফুটে উঠেছে। একইসঙ্গে সুদীপ্ত সেন এটাও বুঝেছেন, এই ঘটনায় বহু ষড়যন্ত্রী প্রকাশ্যে ঘুরে বেড়াচ্ছেন। তাঁদের বিরুদ্ধে কোনও ব্যবস্থাই নেওয়া হয়নি। সেই ক্ষোভ থেকেই সারদা বিপর্যয়ের কারণ সবিস্তারে এই চিঠিতে লিখেছেন সুদীপ্ত।কিন্তু এই চিঠিতে কোনও প্রভাবশালীর নাম রয়েছে কি না সে বিষয়ে এখনই স্পষ্ট করে কিছু বলতে চাইছেন না কুণাল।

Share this News
error: Content is protected !!