আগস্ট 18, 2022

Disha Shakti News

New Hopes New Visions

হতরস কাণ্ড নিয়ে চুপ কেন কঙ্গনা?প্রশ্ন সঞ্জয়ের

হতরসের নক্করজনক ধর্ষণকাণ্ড নিয়ে উত্তাল গোটা দেশ।বলিউড অনেকেই নেমেছেন প্রতিবাদে এছাড়াও সরব হয়েছেন রাজনৈতিক ব্যক্তিত্বরাও।সাধারণ মানুষও রাস্তায় নেমেছে প্রতিবাদ মিছিলে।
কিন্তু আশ্চর্যজনক ভাবে হতরস ধর্ষণকাণ্ড চুপ কঙ্গনা রানাওয়াত।
সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুর ঘটনা থেকে শুরু করে মাদককাণ্ড কিংবা অন্য কোনো অন্যায় বিরুদ্ধে চুপ থাকেন না বলিউডের কুইন। কিন্তু উত্তরপ্রদেশের হিংসাত্বক ধর্ষণ কাণ্ড নিয়ে অভিনেত্রী এখনও চুপ।উত্তরপ্রদেশের যোগী সরকারের বিরুদ্ধে কোন রকমের মন্তব্য করলেন না তিনি।
সেই প্রশ্নই এবার তুলে ধরল সঞ্জয় রাউত।তার বক্তব্য সুশান্তের মৃত্যু কিংবা পরবর্তীকালে মুম্বাই ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রির মাদককাণ্ড সবকিছু নিয়ে সোচ্চার হন কঙ্গনা। এবং তিনি মহারাষ্ট্রকে পাক অধিকৃত কাশ্মীরের সঙ্গে তুলনা করেন। মহারাষ্ট্রে সুরক্ষা ব্যবস্থা ভেঙে পড়েছে সেখানে কোনো স্বাধীনতা নেই এমন কথা বলতে শোনা যায় কঙ্গনাকে।উদ্ভব ঠাকরে সরকারকে তুলোধোনা করতে ছাড়েননি কঙ্গনা।
মহারাষ্ট্রের প্রতি কু মন্তব্য করলেও বলিউডের কুইন চুপ উত্তরপ্রদেশের নক্করজনক ধর্ষণ কাণ্ড নিয়ে।উত্তরপ্রদেশ সরকারের বিরুদ্ধে কোনো রকম প্রশ্ন রাখেন না তিনি।তাই সঞ্জয় রাউত বলেছেন ধর্ষণে অভিযুক্ত ছিলেন যারা তারা কি কঙ্গনার ভাই?
যদিও কঙ্গনা হতরস ধর্ষণকাণ্ড নিয়ে মুখ খুলেছেন তিনি। বলেছেন যোগী সরকারের প্রতি সম্পূর্ণ আস্থা রয়েছে। এই কাণ্ড সব অভিযুক্তদের কঠোর সাজা দেবে উত্তরপ্রদেশ সরকার ।হতরসের গণধর্ষিতার মৃত্যু হয় দিল্লি সফদরজং হাসপাতালে। তবে পরিবারের অনুমতি ছাড়া যে নির্যাতিতার দেহ পুড়িয়ে দেয় উত্তরপ্রদেশ পুলিশ। এ নিয়ে কোন বক্তব্যই করেনি তিনি। এতবড় অন্যায় বিরুদ্ধে চুপ কেন কঙ্গনা উঠছে সেখানেই প্রশ্ন।
অন্যদিকে সুশান্তকান্ড নিয়ে আইএমসের রিপোর্ট অনুযায়ী জানা গেছে সুশান্তের খুন হয়নি তিনি আত্মহত্যা করেছেন বিষ খাইয়ে তাকে খুনের তত্ত্ব একেবারেই নাকচ করে দিয়েছেন চিকিৎসকরা।তাই পুলিশকে ঘিরে যে তথ্য গোপনের অভিযোগ উঠেছিল তা একেবারেই ছিল ভুল মহারাষ্ট্রের শাসকদল এমনটাই জানিয়েছে।এই নিয়ে বিজেপি শিবসেনা সরকারের বিরুদ্ধে যে অভিযোগ তুলেছিল তার জন্য অবিলম্বে ক্ষমা চাওয়ার কথা বলা হয়েছে।
তবে এখন সবকিছু নিয়ে চুপ রয়েছেন বলিউডের কুইন কঙ্গনা রানাওয়াত। এর পেছনে রাজনৈতিক কারণই আসল কিনা এই নিয়ে প্রশ্ন তুলছেন অনেকেই।

রিপোর্ট করা হয়েছে – 6th October 2020

Share this News
error: Content is protected !!